সেনাবাহিনী

সেনাবাহিনী:- ভারতে ব্রিটিশ রাজ প্রতিষ্ঠা ও রাজ্য শাসনের মূল সহায়ক ছিল সেনাবাহিনী । ১৭৫৭ খ্রিস্টাব্দের পলাশির যুদ্ধর পর ১৮৫৮ খ্রিস্টাব্দের সিপাহী বিদ্রোহ পর্যন্ত মাত্র ১০০ বছরের মধ্যে ইংরেজ ইস্ট ইন্ডিয়া কোম্পানি যে অস্বাভাবিক দ্রুততায় সারা ভারত জয় করে নেয় তার অনেকটা কৃতিত্ব ছিল কোম্পানির সুংহত, সুশৃঙ্খল ও আধুনিক সমর বিজ্ঞানে দক্ষ ব্রিটিশ-ভারতীয় সেনাবাহিনীর । ব্রিটিশ ও ভারতীয় সেনার সমবায়ে এই সেনাবাহিনী গঠিত হয়েছিল । ঐতিহাসিক বিপিন চন্দ্রের মতে ভারতে ব্রিটিশ রাজের প্রথম স্তম্ভ ছিল সিভিল সার্ভিস, দ্বিতীয় স্তম্ভ হল সেনাবাহিনী । ঐতিহাসিক পার্সিভ্যাল স্পিয়ারের মতে সিভিল সার্ভিস ভারতে ইংরেজ সরকারের দক্ষিণ হস্ত হলে, সেনাবাহিনী ছিল তার বাম হস্ত । সেনাবাহিনীর কাজ ছিল তিনটি —(ক) ভারতীয় রাজ্যজয়,  (খ) বিদেশী আক্রমণ থেকে রাজ্যরক্ষা করা এবং (গ) ভারতে অভ্যন্তরীন বিদ্রোহ দমন করা । 

এই সময় কোম্পানির সেনাবাহিনীতে উচ্চপদস্থ অফিসার ও সেনাপ্রধানরা সবাই ছিলেন ব্রিটিশ । প্রথম দিকে সাধারণ সেনাদের বেশির ভাগ ছিল বিহার ও উত্তরপ্রদেশের লোক, কিন্তু পরবর্তীকালে ব্রিটিশ সেনাবাহিনীতে পাঠান, শিখ, গোর্খা প্রভৃতি রণনিপুণ জাতি থেকে লোক নেওয়া হতে থাকে ।       

***