রবার্ট ক্লাইভের পর ভেরেলস্ট এবং কার্টিয়ার

রবার্ট ক্লাইভের পর ভেরেলস্ট (১৭৬৭-৬৯) এবং কার্টিয়ার (১৭৬৯-৭২)

রবার্ট ক্লাইভের পর ভেরেলস্ট এবং কার্টিয়ার স্বল্প সময়ের জন্য বাংলার গভর্নর নিযুক্ত হন । ওই সময়ে তাঁদের ঔদাসীন্যে বাংলার রাজনৈতিক ক্ষেত্রে চরম অরাজকতা ও বিশৃঙ্খলা দেখা দেয় । এই অবস্থায় ১৭৭২ খ্রিস্টাব্দে ওয়ারেন হেস্টিংস বাংলার গভর্নর নিযুক্ত হয়ে আসেন । তিনি অল্পদিনের মধ্যেই আপন বুদ্ধি ও বিচক্ষণতার দ্বারা বাংলার পরিস্থিতি নিজের নিয়ন্ত্রণে নিয়ে আসেন । ইতিমধ্যে ১৭৭৩ খ্রিস্টাব্দে ব্রিটিশ পার্লমেন্ট নিয়ামক আইন (Regulating Act) পাশ হয় । এই আইনের মাধ্যমে মাদ্রাজ ও বোম্বাই প্রেসিডেন্সি দুটিকে কলকাতার অধীনে আনা হয় এবং ব্রিটিশ অধিকারসমূহের রক্ষণাবেক্ষণের জন্য ওয়ারেন হেস্টিংস গভর্নর জেনারেল পদে উন্নিত হন । গভর্নর জেনারেল পদের কার্যভার গ্রহন করার পর তিনি বুঝতে পারেন যে ইস্ট ইন্ডিয়া কোম্পানি নিছক বাণিজ্যিক প্রতিষ্ঠান থেকে একটি রাজনৈতিক শক্তিতে পরিণত হয়েছে । সুতরাং, সেই শক্তিকে সুদৃঢ় ও সংগঠিত করা দরকার । গভর্নর জেনারেল পদে তাঁর কার্যভার গ্রহণের পূর্বেই দক্ষিণ ভারতে ইংরেজগণ মহীশূর রাজ্যের সঙ্গে সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে । সুলতান হায়দর আলির নেতৃত্বে মহীশূর তখন শক্তিশালী রাজ্যে পরিণত হয়েছিল । তাই এই মহীশূর রাজ্যটিকে নিজেদের সাম্রাজ্য বিস্তারের পথে বাধা ভেবে ইংরেজগণ একে ধ্বংস করার চেষ্টায় নিরত ছিলেন ।

***